বিভিন্ন ধাতু দিয়ে তৈরি খাবার খেলে শরীরের কি কি উপকার পাওয়া যায়

বিভিন্ন ধাতু দিয়ে তৈরি খাবার খেলে শরীরের কি কি উপকার পাওয়া যায়

সকালে তামার পাত্রে জল পান করা শরীরের জন্য ভালো। এমন অনেক পাত্র রয়েছে যাতে খাবার খাওয়া থেকে শুরু করে জল পান করা পর্যন্ত অনেক উপকার পাওয়া যায়। অনেকেই আছেন যারা নির্দিষ্ট পাত্রে খাবার খেতে পছন্দ করেন না। অনেক মহিলা আছেন যারা ওজন কমাতে নির্দিষ্ট পাত্রে জল খেতে, পান করতে, খাবার খেতে পছন্দ করেন। আজ আমরা আপনাদের জানাতে যাচ্ছি বিভিন্ন ধাতু দিয়ে তৈরি পাত্রে খাবার খেলে কী কী উপকার পাওয়া যায়।

১.কাঁসার পাত্র- কাঁসা এক প্রকারের সংকর ধাতু। সাধারণত তামার সঙ্গে বিভিন্ন অনুপাতে টিন মিশিয়ে কাঁসা প্রস্তুত করা হয়। তবে অনেক সময় টিন ছাড়াও এতে দস্তা, ম্যাঙ্গানিজ,অ্যালুমিনিয়াম, নিকেল, প্রভৃতি ধাতুও মিশানো হয়। কাঁসার ধাতুর পাত্রে খাবার খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য খুবই ভালো বলে মনে করা হয়। অন্য যে কোন পাত্রে খাবার খাওয়ার তুলনায় কাঁসার পাত্রে খাওয়া মনকে খুব তীক্ষ্ণ করে তোলে। এটি রক্তের ব্যাধিও উন্নত করে এবং সময়ে সময়ে ক্ষুধাও অনুভূত হয়। এই পাত্রে টক জিনিস খাওয়া থেকে বিরত থাকুন।

২.স্টিলের পাত্র- বর্তমানে ব্যবহৃত সকল সংকর ধাতুর মধ্যে লোহার সংকরের ইস্পাত, স্টেইনলেস স্টিল, সংকর ইস্পাত পরিমাণ ও বাণিজ্যিক মান উভয় দিক থেকেই বেশি। আয়ুর্বেদ অনুসারে, স্টিলের পাত্রে খাবার খাওয়া উচিত নয়। এতে খাবার খেলে ধীরে ধীরে হাড় দুর্বল হতে থাকে এবং পরিপাকতন্ত্রেও খারাপ প্রভাব পড়ে।

৩.লোহার পাত্র- লোহার পাত্রে খাবার রান্না করলে সে সব জিনিসের লোহার বৈশিষ্ট্য আসে। এটি শরীরে আয়রনের ঘাটতি দূর করতে পারে। তবে মাছের অ্যাসিড জাতীয় খাবার ইত্যাদি লোহার পাত্রে রান্না করা উচিত নয়।

৪.তামার পাত্র- সকালে তামার পাত্রে জল খেলে অনেক উপকার পাওয়া যায়। এর সাহায্যে পেটে গ্যাসের সমস্যা সহজেই দূর করা যায়। অনেকে আবার তুলসী পাতা যোগ করে জল খেয়ে থাকেন।

৫.মাটির পাত্র - সবচেয়ে নিরাপদ এবং স্বাস্থ্যকর পাত্র হল মাটির পাত্র। আজও গ্রামের অনেকেই এগুলোতে খাবার তৈরি করে এবং খাবারও খায়। এটি খুবই পুষ্টিকর। এর মধ্যে রান্না করা খাবারের ১%ও ক্ষতি করে না।