সত্যজিৎ রায়

সত্যজিৎ রায়

সত্যজিৎ রায় Satyajit Ray শুধুমাত্র একজন ভারতীয় আন্তর্জাতিক মান সম্পন্ন চলচ্চিত্র পরিচালক ছিলেন না , Satyajit Ray সত্যজিৎ রায় ছিলেন বিশ্বের অন্যতম শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্র পরিচালক। Satyajit Ray সত্যজিৎ রায় শুধু দেশের নয় , বহু আন্তর্জাতিক শ্রেষ্ঠ পুরস্কারগুলাে অর্জন করেন একাধিকবার। এক হিসাবে জানা যায় , ১৯৮৪ সন পর্যন্ত তিনি মােট ২৮ টি আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র পুরস্কার লাভ করেন , যা বিশ্বের চলচ্চিত্র ইতিহাসে আর কারাে পক্ষে অর্জন করা সম্ভব হয়নি। তাহলে জেনে নেওয়া যাক Satyajit Ray সত্যজিৎ রায়ের জীবন কাহিনী সম্পর্কে।

১.জন্মসাল ও পরিচয়- ১৯২১ খ্রি ২ রা মে ময়মনসিংহের মসুয়ার জমিদার বংশে সাহিত্যিক , চিত্রশিল্পী ও আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন চলচ্চিত্রকার সত্যজিৎ রায়ের জন্ম।তার পিতা বাংলা শিশু সাহিত্যে খেয়ালরসের স্রষ্টা সুকুমার রায় , মাতা সুপ্রভাদেবী।

২.শৈশবকাল- তার যখন আড়াই বছর বয়স তখন তিনি পিতৃহারা হন , মাতা সুপ্রভাদেবীর সঙ্গে সত্যজিৎ ছয় বছর বয়স থেকে মামার বাড়িতে থাকেন। মায়ের কাছেই প্রাথমিক পড়াশুনা। সংসারের প্রয়ােজনে সুপ্রভাদেবীকে একসময়ে বিদ্যাসাগর বানীভবন বিদ্যাশ্রমে সেলাইয়ের কাজও করতে হয়েছিল। 

৩.শিক্ষাজীবন- দশ বছর বয়সে বালিগঞ্জ হাইস্কুলে ফিথ ক্লাসে অর্থাৎ এখনকার মতে ক্লাস সিক্সে ভর্তি হন। এখান থেকে তিনি ম্যাট্রিক পাশ করার পর প্রেসিডেন্সি কলেজ থেকে অর্থনীতিতে অনার্স নিয়ে বি . এ পাশ করেন ১৯৩৮ খ্রিঃ। বাবা এবং ঠাকুরদার কাছ থেকে উত্তরাধিকার সূত্রেই শিল্প সাহিত্যের প্রতিভা লাভ করেছিলেন সত্যজিৎ।

স্কুলে থাকতে বাড়ির সংগ্রহের রেকর্ড শুনে পাশ্চাত্য সঙ্গীতে দীক্ষিত হয়ে যান। ব্রাহ্মণ পরিবারের সন্তান হিসেবে এর পাশাপাশি ব্রহ্মসঙ্গীত , রবীন্দ্রসঙ্গীত ও ভারতীয় মার্গসঙ্গীতের প্রতিও অনুরাগ জন্মেছিল।কিন্তু আধুনিকমনা সত্যজিতের পক্ষে এখানকার পরিবেশ মনঃপুত না হওয়ায় শিক্ষা অসমাপ্ত রেখেই কলকাতায় চলে আসেন।

৪.কর্মজীবন- ১৯৪০ খ্রিঃ এপ্রিল মাসে তিনি ব্রিটিশ বিজ্ঞাপন কোম্পানি ডিজে কিমার সংস্থায় জুনিয়র ভিসুয়ালাইজার হিসেবে যােগ দেন। এই সময়েই তিনি সিগনেট প্রেস প্রকাশন সংস্থার বইয়ের প্রচ্ছদ আঁকা শুরু করেন। ছােটদের পত্রিকা মৌচাকেও তার প্রথম আঁকা অলঙ্করন প্রকাশিত হয়।

৫.উপন্যাস- সত্যজিৎ রায় পরিচালিতপথের পাঁচালীর প্রথম প্রদর্শনী হয়নিউইয়র্কে ১৯৫৫ খ্রিঃ এপ্রিলে। কলকাতায় মুক্তি পায় সেই বছরেই ২৬ শে আগস্ট। ছবিটি সেই বছরইরাষ্ট্রপতির স্বর্ণ ও রৌপ্য পদক পায়। 

৬. চলচিত্রছবি- সত্যজিৎ রায়ের ভারতীয় চলচ্চিত্রের গােত্রান্তর ঘটিয়েছিলেন । তার পরিচালিত উল্লেখযােগ্য ছবি ‘ অপরাজিত , অপুর সংসার । জলসাঘর , কাঞ্চনজঙ্ঘা , অভিযান , মহানগর , চারুলতা এবং শেষ দিককার ঘরেবাইরে , গণশত্রু , শাখাপ্রশাখা , আগন্তুক প্রভৃতি। 

৭.পুরস্কার- ১৯৬৭ খ্রিঃ প্রফেসর শঙ্কু বছরের শ্রেষ্ঠ শিশুসাহিত্য গ্রন্থরূপে আকাদেমি পুরস্কার লাভ করে। সাহিত্যিক হিসেবে এছাড়াও তিনি আরও সম্মান ও পুরস্কার পেয়েছেন।চলচ্চিত্রকার হিসেবে সত্যজিৎ দেশের ও বিদেশের বহু পুরস্কার ও বিশ্ববিদ্যালয়ের সাম্মানিক ডি . লিট উপাধি লাভ করেন। বিশ্বভারতীর দেশিকোত্তম সম্মান এবং ভারত সরকারের ভারতরত্ন উপাধিতে ভূষিত হন।

৮.প্রয়াতকাল- ১৯৯২ খ্রিঃ ২৩ শে এপ্রিল ৭১ বছর বয়সে প্রখ্যাত সাহিত্যিক , চিত্রশিল্পী , সঙ্গীত পরিচালক সত্যজিৎ রায় কলকাতায় পরলোক গমন করেন ।