চুলের যত্নে চা পাতা এর ভূমিকা জেনে নিন

চুলের যত্নে চা পাতা এর ভূমিকা জেনে নিন

চা শুধু স্বাস্থ্যকর পানীয়ই নয়, রূপচর্চায়ও অবদান রাখে চা। চুলের উপকারে রয়েছে চায়ের বহুমুখী ব্যবহার। চায়ে থাকা ক্যাফেইন, অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট, অ্যান্টি-এজিং, অ্যান্টি-ইনফ্লামেটরি উপাদান চুলের যত্নে দারুণ ভূমিকা রাখে।এক কাপ চা আমাদের কর্মচঞ্চল করে তোলে। এক কাপ চা আমাদের সতেজ করে তোলে। তবে চায়ের ব্যবহার এখানেই শেষ না। চুলের যত্নে চা দারুণ কাজ করে। শরীরেও চায়ের প্রভাব রয়েছে। তাহলে জেনে নেওয়া যাক এই চুলের যত্নে চা এর অবদান সম্পর্কে। 

১.নিষ্প্রাণ চুলের যত্নে- অনেকের চুল ভেঙে যায়। এ সমস্যা থেকে রক্ষা করতে পারে ব্ল্যাক টি। যাদের চুলে উজ্জ্বলতা নেই, উষ্কখুষ্ক, তারাও এই সমস্যা থেকে মুক্তি পাবেন চায়ের লিকার ব্যবহারে। দুই ক্ষেত্রেই চায়ের লিকার চুলে দিয়ে ১০ মিনিট রেখে দিতে হবে। এরপর শ্যাম্পু দিয়ে চুল ভালোভাবে পরিষ্কার করে ফেলতে হবে।

২.চুলের উজ্জ্বলতা ধরে রাখতে- চুলের উজ্জ্বলতার জন্য চায়ের লিকার দিয়ে কন্ডিশনারও বানিয়ে নেওয়া যেতে পারে। চা পাতা ফুটিয়ে গরম করে নিতে হবে। তারপর ঠাণ্ডা করে ছেঁকে লেবুর রস দিয়ে কন্ডিশনার হিসেবে ব্যবহার করতে পারেন। নিয়মিত ব্যবহারে চুল হবে ঝলমলে।

৩.খুশকির সমস্যায়- শীতকালে অনেকের চুলে খুশকি দেখা যায়। তারা চাইলে চা পাতার প্যাক করে নিতে পারেন। এই প্যাক নিয়মিত ব্যবহারে চুলের খুশকি দূর হবে। ব্যবহার করা চায়ের পাতা ফেলে না দিয়ে পরিষ্কার জলে ধুয়ে ফেলতে হবে। এরপর ঠাণ্ডা করে চুলে ব্যবহার করতে পারেন। এতে চুলের খুশকি দূর হবে ও চুল উজ্জ্বল হবে।

৪.চুল পড়া বন্ধ করে - চুল পড়া রোধ ও চুলের বৃদ্ধিতে কাজ করে চায়ের লিকার। চা পাতা জলে ফুটিয়ে ঠাণ্ডা করে নিতে হবে। এরপর এই জল চুল ও মাথার তালুতে স্প্রে করতে হবে। নিয়মিত করলে চুল পড়া কমবে এবং চুলের বৃদ্ধি ভালো হবে।

৫.চুল পাকা রোধে- অনেকের কম বয়সে চুল পাকতে শুরু করে। এই সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে চায়ের লিকার ব্যবহার করতে পারেন। পাকা চুলে কালো রং পেতে চাইলে চা পাতার সঙ্গে হেনার রস মিশিয়ে প্যাক করে নিতে হবে। এই প্যাক চুলে লাগিয়ে আধাঘণ্টা রেখে দিতে হবে। চুল শুকিয়ে এলে শ্যাম্পু করে ভালোভাবে ধুয়ে ফেলতে হবে।

৬.চুলের কন্ডিশনার হিসেবে- বাজারে যেসব কন্ডিশনার পাওয়া যায়, সেগুলোর পরিবর্তে চাপাতা দিয়েই ভালো মানের কন্ডিশনার তৈরি করা যায়। ২ কাপ গরম জলে ১ টেবিল চামচ কালো চা দিয়ে ফুটিয়ে ঠান্ডা করে শ্যাম্পু করার পর চুলে লাগালে কন্ডিশনারের কাজ করবে।